অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বিলম্বিত হচ্ছে ছাত্রলীগ কমিটি
আজকের কণ্ঠঃ ওয়েবসাইটে স্বাগতম | যোগাযোগ : 01730951049, 8802 58316319, 8802 5831 6320
৩১ অক্টোবর, ২০২০ ০৭:৪৪ অপরাহ্ন       রেজিষ্টার করুন | লগইন    


  

রাজনীতি: আওয়ামীলীগ


অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বিলম্বিত হচ্ছে ছাত্রলীগ কমিটি

নিউজ ডেস্কঃ ২১-০৫-২০১৮ ০২:৩১ অপরাহ্ন প্রকাশিতঃ
স্টাফ রিপোর্টার, ঢাকা:

অনুপ্রবেশ ঠেকাতে বিলম্বিত হচ্ছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ছাত্রলীগের নতুন কমিটি। ২৯তম জাতীয় সম্মেলনে আনুষ্ঠানিকভাবে কমিটি ঘোষণার কথা থাকলেও কৌশলগত কারনে নেতৃত্ব নির্বাচন থেকে বিরত থাকেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

যে কারনে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সম্মেলন শেষ হওয়ার ১০ দিন অতিবাহিত হলেও এখনো ঘোষণা হয়নি নতুন কমিটি। নতুন নেতৃত্ব নিয়ে জল্পনা-কল্পনার শেষ নেই। এরই মধ্যে সম্ভাব্য যাঁর নামই সামনে এসেছে তাকে নিয়েই শুরু হচ্ছে আলোচনা-সমালোচনা। কেউ কেউ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করে সম্ভাব্য প্রার্থীদের বিরুদ্ধে আনছে নানা অভিযোগ।

১১ ও ১২ মে অনুষ্ঠিতব্য সম্মেলনে আওয়ামী লীগ নেতা শেখ হাসিনা বলেন, নেতৃত্ব নির্বাচন করা হবে সমঝোতার মাধ্যমে।এবং পরবর্তীতে সরাসরি নেতৃত্ব বাছাই করার দায়িত্ব গ্রহণ করেন দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনা।

আওয়ামী লীগের এক নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায়, সুযোগসন্ধানী কেউ যাতে ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশ করতে না পারে, সে লক্ষ্যে নেতা নির্বাচন করতে চান আওয়ামী লীগ প্রধান শেখ হাসিনা। এ জন্য তিনি তার আওয়ামী লীগের বিশ্বস্ত নেতাদের ডেকে আলাদাভাবে দায়িত্ব দিয়েছেন। বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার মাধ্যমে তথ্যও সংগ্রহ করিয়েছেন।

আওয়ামী লীগের উচ্চপর্যায়ের একটি সূত্র জানিয়েছে, ‘ছাত্রলীগের সদ্য বিদায়ী সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ ও সাধারণ সম্পাদক এসএম জাকির হোসাইন গত কয়েকদিন আগে ছাত্রলীগের সাংগঠনিক নেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারি বাসভবন গণভবনে যান। এবং দীর্ঘ সময় ছাত্রলীগের নতুন নেতৃত্ব বাছাই নিয়ে বৈঠক করেন। এসময় সোহাগ-জাকির ছাড়াও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন। ওই বৈঠকে ছাত্রলীগের কমিটির বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি।’

জানা যায়, পদ প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নিবেন শেখ হাসিনা। এই সপ্তাহের যে কোনো দিন প্রার্থীদের গণভবনে ডাকা হতে পারে বলেও সূত্রটি নিশ্চিত করেছে। এরপর কমিটি ঘোষণা করা হবে। তবে সেদিন প্রার্থীদের মধ্যে সমঝোতাও করা হতে পারে বলে জানিয়েছে ওই সূত্রটি।  

আওয়ামী লীগের নির্ভরযোগ্য সূত্র বলছে, সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক হিসেবে যাঁরা ফরম সংগ্রহ করেছেন, তাঁদের মধ্য থেকেই ওই পদে নেতা নির্বাচন করা হবে বিষয়টা এমন নাও হতে পারে।যারা ফরম সংগ্রহ করেনি, এমন কাউকেও নেতা নির্বাচন করা হতে পারে। প্রয়োজনে বয়সের কড়াকড়িও শিথিল করা হতে পারে।

শীর্ষ পদে একজন নারীর কথা উল্লেখ করে সূত্রটি জানায়, শীর্ষ পদে একজন নারী বা সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের কারও আসার সম্ভাবনা আছে।

কয়েক দফা যাচাই বাছাই করেই এবার শীর্ষ নেতৃত্ব বাছাই করা হবে বলে জানিয়েছেন সাবেক ছাত্রলীগ নেতারা্। ছাত্রলীগের একজন সাবেক সভাপতি বলেন, এবার শীর্ষ পর্যায় থেকে নেতৃত্ব বাছাই হবে। প্রার্থীদের নিয়ে যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে। বাছাইয়ে যাঁদের নাম সামনে এসেছে, সবার বিরুদ্ধেই কোনো না কোনো অভিযোগ উঠেছে। এ অবস্থায় সব পক্ষের সম্মতিতে সমালোচনা নেই, এমন নেতাদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। তাই কমিটি ঘোষণা করতে দেরি হচ্ছে।

ছাত্রলীগের বর্তমান সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ , প্রার্থী যাচাই-বাছাইয়ে একটু সময় লাগছে। প্রধানমন্ত্রী যেভাবে বলবেন, সেভাবেই কমিটি হবে।
২১-০৫-২০১৮ ০২:৩১ অপরাহ্ন প্রকাশিত হয়েছে


পাঠকের ফেসবুক মন্তব্যঃ

আজকের কণ্ঠঃ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

অন্যান্য খবরসমুহ
রাজনীতি : আরো খরবসমুহ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বশেষ প্রকাশিত
ফেসবুকে আজকের কণ্ঠঃ
আজকের কণ্ঠঃ ফোকাস
বিজ্ঞাপন

ভিজিটর সংখ্যা
100
৩১ অক্টোবর, ২০২০ ০৭:৪৪ অপরাহ্ন