8:45 am, Sunday, 21 April 2024

বিখ্যাত এমডি-টু আনারস এখন দেশেই উৎপাদিত হচ্ছে।

প্রতিনিধির নাম
বিখ্যাত এমডি-টু আনারস এখন দেশেই উৎপাদিত হচ্ছে। রপ্তানির জন্যও প্রস্তুত করা হয়েছে।।
জানা গেছে দেশে এ জাতের আনারসের চাষ জনপ্রিয় করতে মাননীয় কৃষিমন্ত্রী ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক এমপির নির্দেশনায়
উদ্যোগ গ্রহণ করে কৃষি মন্ত্রণালয়। ফিলিপাইন থেকে আমদানি করে গতবছর প্রথম দেশে এ জাতের চারা টাঙ্গাইল, রাঙ্গামাটি, বান্দরবন ও খাগড়াছড়ি জেলার কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছিল। সেগুলোতে এ বছর ফলন এসেছে। কয়েক দিনের মধ্যেই কাতারে রপ্তানি শুরু হবে।
সুপার সুইট হিসেবে পরিচিত বিখ্যাত এমডি-২ জাতের আনারস খুবই সুস্বাদু ও পুষ্টিগুণসম্পন্ন। বিশ্ববাজারে এর অত্যাধিক চাহিদা রয়েছে। এটি রপ্তানিযোগ্য। এ জাতের আনারস আমাদের দেশের প্রচলিত আনারসের তুলনায় অনেক বেশি মিষ্টি, ভিটামিন সি এর পরিমাণ ৩-৪ গুণ বেশি। এমডি-২ আনারস একইরকম সাইজের হয়। এই আনারস দ্রুত পচে না। এছাড়া দেশিয় আনারসের চোখগুলো থাকে ভেতরের দিকে। আর এ জাতের আনারসের চোখগুলো থাকে বাইরের দিকে। ফলে পুষ্টিগুণসম্পন্ন অংশের অপচয় কম হয়।
-যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জের পাইনঅ্যাপেল রিসার্চ ইনস্টিটিউট ( পিআরআই) ১৯৬১-৮০ সাল পর্যন্ত গবেষণা করে এ জাতের আনারস উদ্ভাবন করে। এর ব্যতিক্রমী গুণের কারণে ইতিমধ্যে ইউরোপ-আমেরিকাসহ বিশ্বজুড়ে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে  এই আনারস।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপডেট সময় : 03:06:26 pm, Sunday, 9 July 2023
62 বার পড়া হয়েছে
error: Content is protected !!

বিখ্যাত এমডি-টু আনারস এখন দেশেই উৎপাদিত হচ্ছে।

আপডেট সময় : 03:06:26 pm, Sunday, 9 July 2023
বিখ্যাত এমডি-টু আনারস এখন দেশেই উৎপাদিত হচ্ছে। রপ্তানির জন্যও প্রস্তুত করা হয়েছে।।
জানা গেছে দেশে এ জাতের আনারসের চাষ জনপ্রিয় করতে মাননীয় কৃষিমন্ত্রী ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক এমপির নির্দেশনায়
উদ্যোগ গ্রহণ করে কৃষি মন্ত্রণালয়। ফিলিপাইন থেকে আমদানি করে গতবছর প্রথম দেশে এ জাতের চারা টাঙ্গাইল, রাঙ্গামাটি, বান্দরবন ও খাগড়াছড়ি জেলার কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছিল। সেগুলোতে এ বছর ফলন এসেছে। কয়েক দিনের মধ্যেই কাতারে রপ্তানি শুরু হবে।
সুপার সুইট হিসেবে পরিচিত বিখ্যাত এমডি-২ জাতের আনারস খুবই সুস্বাদু ও পুষ্টিগুণসম্পন্ন। বিশ্ববাজারে এর অত্যাধিক চাহিদা রয়েছে। এটি রপ্তানিযোগ্য। এ জাতের আনারস আমাদের দেশের প্রচলিত আনারসের তুলনায় অনেক বেশি মিষ্টি, ভিটামিন সি এর পরিমাণ ৩-৪ গুণ বেশি। এমডি-২ আনারস একইরকম সাইজের হয়। এই আনারস দ্রুত পচে না। এছাড়া দেশিয় আনারসের চোখগুলো থাকে ভেতরের দিকে। আর এ জাতের আনারসের চোখগুলো থাকে বাইরের দিকে। ফলে পুষ্টিগুণসম্পন্ন অংশের অপচয় কম হয়।
-যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জের পাইনঅ্যাপেল রিসার্চ ইনস্টিটিউট ( পিআরআই) ১৯৬১-৮০ সাল পর্যন্ত গবেষণা করে এ জাতের আনারস উদ্ভাবন করে। এর ব্যতিক্রমী গুণের কারণে ইতিমধ্যে ইউরোপ-আমেরিকাসহ বিশ্বজুড়ে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে  এই আনারস।