9:33 am, Friday, 19 April 2024

ফুলবাড়ীতে কুকুরের কামড়ে ৮টি ছাগলে মৃত্যু

প্রতিনিধির নাম

মোঃ রায়হান বাবু , ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার খয়েরবাড়ী পশ্চিমপাড়া গ্রামে একই দিনে কুকুরের কামড়ে ৪টি পরিবারের ৮টি ছাগলের মৃত্যু। শিশুসহ গবাদি পশু নিয়ে বিপাকে পড়েছে এলাকার প্রায় ৪ গ্রামের বাসিন্দা। দ্রুত কুকুর গুলোকে চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি তাদের। গত ( ২৮ ফেব্রুয়ারি) বুধবার সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, গত (২৭ ফেব্রুয়ারি) মঙ্গলবার সকাল থেকে বিকালের মধ্যে এলাকার বিভিন্ন জায়গায় ছেড়ে দেওয়া ও বেঁধে রাখা ৮টি ছাগলকে ৫টি কুকুরের একটি দল আক্রমন করে ঘাড়ে ও মাথায় কামড় দিয়ে জখম করে। এর কিছুক্ষন পর ছাগল গুলো মারা যায়। মৃত ৬ টি ছাগলকে মাটিতে পুতে রাখা হয় । অপর ২টি ছাগল পাশের গ্রামের আদিবাসি খাবারের উদ্দ্যেশে নিয়ে যায়। ছাগলের মালিক বেলাল হোসেন জানান, আমি সকালে আমার জমিতে ৪টি ছাগল বেঁধে রেখে আসি। দুপুরে দিকে তাদের খোঁজ করতে গিয়ে দেখতে পাই ছাগল গুলো মরে পড়ে আছে। আর তাদের ঘাড় থেকে রক্ত ঝরছে। বিষয়টি নিয়ে পাশের লোকজনের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন ৫টি কুকুরের একটি দল তার ছাগলকে কামড়ে মেরে ফেলে। আমি কুকুর গুলোকে মারার চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু তারা আমাকেও আক্রমন করতে এগিয়ে আসে। ভয়ে আমি পলিয়ে আসি। আমার প্রায় ২০ হাজার টাকার মতো ক্ষতি হয়েছে। ছাগল মালিক পপি বেগম জানান, আমার ছাগল গুলো বাড়ীর পাশে পাতারে ঘুরাঘুরি করছিলো। হঠাৎ কয়েকটা কুকুর আমার ছাগলকে আক্রমন করে কামড় দিয়ে চলে যায়। আমি দৌড়ে গিয়ে দেখি আমার ৩টা ছাগলের মধ্যে ২টি ছাগল মারা গেছে। আর একটি আহত অবস্থায় পড়ে আছে। আমি আহত ছাগলটাকে স্থানীয় পুশু ডাক্তারকে দেখাই এবং ভ্যাকসিন দেই। আর মৃত ছাগল গুলো পাশের গ্রামের আদিবাসী সাঁওতালেরা নিয়ে গেছে। আর এক ছাগল মালিক কল্পনা রানী বলেন আমার ২টি ছাগল পাতারে রেখে আসছিলাম এর মধ্যে একটিকে কুকুর কামড় দিয়ে মেরে ফেলেছে। বিষয়টি নিয়ে খয়েরবাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ এনামুল হক এর সাথে কথা বললে তিনি জানান, আমি লোক মারফৎ জানতে পেরেছি যে পশ্চিম পাড়া গ্রামে কুকুরের কামড়ে ৮টি ছাগল মারা গেছে আর একটি আহত। বিষয়টি অত্যান্ত দুঃখজনক আমি বিষয়টি উপজেলায় কথা বলে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে সহায়তা করার চেষ্টা করবো। এর পাশাপাশি কুকুর গুলো চিহ্নিত করে তাদের দমনের চেষ্টা করবো। উপজেলা প্রানি সম্পদক কর্মকর্তা মোঃ রবিউল ইসলাম জানান, আমাদের দেশে বেওয়ারিশ কুকুরের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। কুকুরের খাবার সংকটের কারণে তারা হিংস্র হয়ে উঠতে পারে। আমরা মৃত ছাগলের নমুনা সংগ্রহ করে দেখবো যে কুকুর গুলো কোন কোন ধরনের রোগে আক্রান্ত হয়ে আছে। আমরা কুকুর গুলো সনাক্তের চেষ্টা করছি। তাদেরকে পেলে ভ্যাকসিনের আওয়াত আনা হবে। এভাবে কুকুরের কামড়ে ছাগল মৃত্যুর ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চলেরর সৃষ্টি হয়েছে। আশপাশের মানুষসহ গবাদি পশু গুলো নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। স্থানীয়দের দাবি উপজেলা প্রশাসন যেন দ্রুত সময়ের মধ্যে ঘাতক কুকুর গুলোকে চিহ্নিত করে ব্যবস্থা করে।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপডেট সময় : 06:45:11 pm, Wednesday, 28 February 2024
43 বার পড়া হয়েছে
error: Content is protected !!

ফুলবাড়ীতে কুকুরের কামড়ে ৮টি ছাগলে মৃত্যু

আপডেট সময় : 06:45:11 pm, Wednesday, 28 February 2024

মোঃ রায়হান বাবু , ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার খয়েরবাড়ী পশ্চিমপাড়া গ্রামে একই দিনে কুকুরের কামড়ে ৪টি পরিবারের ৮টি ছাগলের মৃত্যু। শিশুসহ গবাদি পশু নিয়ে বিপাকে পড়েছে এলাকার প্রায় ৪ গ্রামের বাসিন্দা। দ্রুত কুকুর গুলোকে চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি তাদের। গত ( ২৮ ফেব্রুয়ারি) বুধবার সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, গত (২৭ ফেব্রুয়ারি) মঙ্গলবার সকাল থেকে বিকালের মধ্যে এলাকার বিভিন্ন জায়গায় ছেড়ে দেওয়া ও বেঁধে রাখা ৮টি ছাগলকে ৫টি কুকুরের একটি দল আক্রমন করে ঘাড়ে ও মাথায় কামড় দিয়ে জখম করে। এর কিছুক্ষন পর ছাগল গুলো মারা যায়। মৃত ৬ টি ছাগলকে মাটিতে পুতে রাখা হয় । অপর ২টি ছাগল পাশের গ্রামের আদিবাসি খাবারের উদ্দ্যেশে নিয়ে যায়। ছাগলের মালিক বেলাল হোসেন জানান, আমি সকালে আমার জমিতে ৪টি ছাগল বেঁধে রেখে আসি। দুপুরে দিকে তাদের খোঁজ করতে গিয়ে দেখতে পাই ছাগল গুলো মরে পড়ে আছে। আর তাদের ঘাড় থেকে রক্ত ঝরছে। বিষয়টি নিয়ে পাশের লোকজনের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন ৫টি কুকুরের একটি দল তার ছাগলকে কামড়ে মেরে ফেলে। আমি কুকুর গুলোকে মারার চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু তারা আমাকেও আক্রমন করতে এগিয়ে আসে। ভয়ে আমি পলিয়ে আসি। আমার প্রায় ২০ হাজার টাকার মতো ক্ষতি হয়েছে। ছাগল মালিক পপি বেগম জানান, আমার ছাগল গুলো বাড়ীর পাশে পাতারে ঘুরাঘুরি করছিলো। হঠাৎ কয়েকটা কুকুর আমার ছাগলকে আক্রমন করে কামড় দিয়ে চলে যায়। আমি দৌড়ে গিয়ে দেখি আমার ৩টা ছাগলের মধ্যে ২টি ছাগল মারা গেছে। আর একটি আহত অবস্থায় পড়ে আছে। আমি আহত ছাগলটাকে স্থানীয় পুশু ডাক্তারকে দেখাই এবং ভ্যাকসিন দেই। আর মৃত ছাগল গুলো পাশের গ্রামের আদিবাসী সাঁওতালেরা নিয়ে গেছে। আর এক ছাগল মালিক কল্পনা রানী বলেন আমার ২টি ছাগল পাতারে রেখে আসছিলাম এর মধ্যে একটিকে কুকুর কামড় দিয়ে মেরে ফেলেছে। বিষয়টি নিয়ে খয়েরবাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ এনামুল হক এর সাথে কথা বললে তিনি জানান, আমি লোক মারফৎ জানতে পেরেছি যে পশ্চিম পাড়া গ্রামে কুকুরের কামড়ে ৮টি ছাগল মারা গেছে আর একটি আহত। বিষয়টি অত্যান্ত দুঃখজনক আমি বিষয়টি উপজেলায় কথা বলে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে সহায়তা করার চেষ্টা করবো। এর পাশাপাশি কুকুর গুলো চিহ্নিত করে তাদের দমনের চেষ্টা করবো। উপজেলা প্রানি সম্পদক কর্মকর্তা মোঃ রবিউল ইসলাম জানান, আমাদের দেশে বেওয়ারিশ কুকুরের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। কুকুরের খাবার সংকটের কারণে তারা হিংস্র হয়ে উঠতে পারে। আমরা মৃত ছাগলের নমুনা সংগ্রহ করে দেখবো যে কুকুর গুলো কোন কোন ধরনের রোগে আক্রান্ত হয়ে আছে। আমরা কুকুর গুলো সনাক্তের চেষ্টা করছি। তাদেরকে পেলে ভ্যাকসিনের আওয়াত আনা হবে। এভাবে কুকুরের কামড়ে ছাগল মৃত্যুর ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চলেরর সৃষ্টি হয়েছে। আশপাশের মানুষসহ গবাদি পশু গুলো নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। স্থানীয়দের দাবি উপজেলা প্রশাসন যেন দ্রুত সময়ের মধ্যে ঘাতক কুকুর গুলোকে চিহ্নিত করে ব্যবস্থা করে।