12:53 pm, Friday, 21 June 2024

ঠাকুরগাঁওয়ে শ্বাসরুদ্ধ করে গৃহবধূকে হত্যা,পলাতক স্বামীসহ পরিবারের সদস্যরা

প্রতিনিধির নাম

আব্দুল্লাহ আল সুমন, ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি:

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলায় সাহানাজ বেগম (২০) নামে এক অন্ত:সত্ত্বা গৃহবধূকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার পর থেকে গৃহবধুর স্বামী ও শশুর বাড়ির লোকজন পলাতক রয়েছে।

শুক্রবার রাতে সদর উপজেলার রহিমানপুর ইউনিয়নের উত্তরপাড়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে৷ নিহত সাহানাজ বেগম গ্রামের বিশাল রহমানের স্ত্রী। তিনি ৪ মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন৷

দূর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেন রহিমানপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান হান্নু। তিনি বলেন,বেশ কয়েকদিন থেকে তাদের ঝগড়া চলছে। গত রাতেও তারা ঝগড়া করেছে। অনুমান করা হচ্ছে তাকে শ্বাসরুদ্ধ করে মারা হয়েছে। রাত থেকেই তাদের বাড়ির সবাই পলাতক রয়েছে। ছেলেটি মাদকের সাথে জড়িত ছিল৷ পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছেন। তদন্ত সাপেক্ষে তারা আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

সদর থানার অফিসার ইনচার্জ এবিএম ফিরোজ ওয়াহিদ বলেন,মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এখনো অবদি কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপডেট সময় : 03:00:01 pm, Friday, 31 May 2024
31 বার পড়া হয়েছে
error: Content is protected !!

ঠাকুরগাঁওয়ে শ্বাসরুদ্ধ করে গৃহবধূকে হত্যা,পলাতক স্বামীসহ পরিবারের সদস্যরা

আপডেট সময় : 03:00:01 pm, Friday, 31 May 2024

আব্দুল্লাহ আল সুমন, ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি:

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলায় সাহানাজ বেগম (২০) নামে এক অন্ত:সত্ত্বা গৃহবধূকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার পর থেকে গৃহবধুর স্বামী ও শশুর বাড়ির লোকজন পলাতক রয়েছে।

শুক্রবার রাতে সদর উপজেলার রহিমানপুর ইউনিয়নের উত্তরপাড়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে৷ নিহত সাহানাজ বেগম গ্রামের বিশাল রহমানের স্ত্রী। তিনি ৪ মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন৷

দূর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেন রহিমানপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান হান্নু। তিনি বলেন,বেশ কয়েকদিন থেকে তাদের ঝগড়া চলছে। গত রাতেও তারা ঝগড়া করেছে। অনুমান করা হচ্ছে তাকে শ্বাসরুদ্ধ করে মারা হয়েছে। রাত থেকেই তাদের বাড়ির সবাই পলাতক রয়েছে। ছেলেটি মাদকের সাথে জড়িত ছিল৷ পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছেন। তদন্ত সাপেক্ষে তারা আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

সদর থানার অফিসার ইনচার্জ এবিএম ফিরোজ ওয়াহিদ বলেন,মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এখনো অবদি কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।